মোবাইল-ল্যাপটপ চুরির অভিযোগে কলকাতার শিয়ালদহ স্টেশন থেকে এক বাংলাদেশিকে আটক করেছে জিআরপি পুলিশ। ০৬ জুলাই শিয়ালদহ স্টেশন থেকে তাকে আটক করা হয়।

আটক ব্যক্তির নাম মিরাজ শেখ, বাড়ি বাংলাদেশের পিরোজপুর জেলায়। গত ২৬ জুন সে বৈধ পাসপোর্ট নিয়ে কলকাতায় আসে।

প্রতি শুক্রবার সন্ধ্যায় শিয়ালদহ স্টেশন থাকে অফিস ফেরত যাত্রীদের ট্রেন ধরার ভিড়। গত শুক্রবার ওই ভিড়ের মধ্যে ৩ নম্বর প্ল্যাটফর্মে এক যুবককে সন্দেহজনকভাবে ঘোরাফেরা করতে দেখে টহল পুলিশ। এ সময় তারা ধাওয়া করে ওই যুবককে আটক করে। পরে তার দেহ তল্লাশি করে দুটি মোবাইল ফোনসেট পাওয়া যায়।

জিআরপি পুলিশ জানিয়েছে, বেশ কিছুদিন ধরে তারা শিয়ালদহ রেল স্টেশন চত্বরে মোবাইল ফোন ও ল্যাপটপ চুরির অভিযোগ পাচ্ছিলেন। কিন্তু বহু চেষ্টা করেও তারা কিছু করতে পারছিল না। পরে গোপন সূত্রে খবর পেয়ে জিআরপি পুলিশ ও আরপিএফের যৌথ অভিযানে ধরা পড়ে মিরাজ।

রেল পুলিশের এক কর্তা জানান, ‘জিজ্ঞাসাবাদে মিরাজ জানিয়েছে, হরিদাসপুর চেক পোস্ট দিয়ে ভারতে প্রবেশের পরে বনগাঁও থাকতো সে। ট্রেনে করে শিয়ালদহে আসতো। সুযোগ পেলে চলন্ত ট্রেন বা স্টেশনেই যাত্রীদের মোবাইল-ল্যাপটপ চুরি করে ফিরে যেতো। গত বছরও সে একইভাবে পশ্চিমবঙ্গে গিয়েছিলো। সেই সময়ে একটি দুষ্কৃতীকারী দলের সঙ্গে থেকে সে কলকাতাসহ বিভিন্ন এলাকায় ওই দুষ্কর্ম শিখেছিলো। তার দাবি, এবার সে একাই এসেছে।’